১০ টাকায় এক কোটি ব্যাংক হিসাব কৃষকের

0
66

অনলাইন ডেস্ক : নিম্ন আয়ের মানুষের দোরগোড়ায় ব্যাংকিং সেবা পৌঁছে দিতে সরকারের উদ্যোগের সুফল পাচ্ছেন কৃষকেরা। দশ টাকা দিয়ে খোলা হিসাবে দুস্থ ও নিম্ন আয়ের মানুষের টাকা জমছে ব্যাংকে। রাষ্ট্রায়ত্ত আটটিসহ বিভিন্ন ব্যাংকে এমন ১ কোটি ৯০ লাখ ২৩ হাজার ৭৪৮টি হিসাব খোলা হয়েছে, যার মধ্যে কৃষকের হিসাব ৯৮ লাখ ৮৬ হাজার ৮৪৭টি।
বিভিন্ন ব্যাংকে খোঁজ নিয়ে দেখা গেছে, সহজে হিসাব খোলা এবং পরিচালনায় কোনো ধরনের চার্জ না থাকায় ব্যাংকিং সেবা পেতে আগ্রহ বাড়ছে নিম্ন আয়ের মানুষের। ফলে ব্যাংক সুবিধার আওতায় এসেছে অগণিত নিম্ন আয়ের মানুষ।
আগে ব্যাংক খাতের বড় ভোক্তা ছিল দেশের সচ্ছল বা মধ্যবিত্ত লোকেরা। দুস্থ বা নিম্ন আয়ের বড় অংশই ছিল আর্থিক সেবা খাতের বাইরে। তাদের ব্যাংকিং সেবার আওতায় আনতে সরকার নানা সার্কুলার জারি করে। নেওয়া হয় বিশেষ ব্যবস্থায় হিসাব খোলার কার্যক্রম। ন্যূনতম ১০ টাকা, ৫০ টাকা এবং ১০০ টাকা জমা দিয়ে এসব হিসাব খোলার সুযোগ রাখা হয়। সর্বনিম্ন জমার বাধ্যবাধকতাও তুলে দেওয়া হয়। এসব হিসাবে জমা অর্থের ওপর মুনাফার হার অন্য হিসাবের চেয়ে বেশি দিতে বলা হয়। ফলে এসব হিসাব খোলার প্রবণতাও বেড়েছে।
১০ টাকার অ্যাকাউন্ট খোলার প্রক্রিয়া শুরু হয় কৃষকদের মাধ্যমে। গত বছরের ডিসেম্বর পর্যন্ত ৯৮ লাখ ৮৬ হাজার ৮৪৭ জন কৃষক এই হিসাবে জমা রেখেছেন ৩০৩ কোটি টাকা। মুক্তিযোদ্ধাদের অ্যাকাউন্টে জমা রয়েছে ২৫৪ কোটি টাকা।
এ বিষয়ে সোনালী ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ওবায়েদ উল্লাহ আল মাসুদ বলেন, ‘দারিদ্র্য কমানো, টেকসই ও স্থিতিশীল প্রবৃদ্ধির জন্য সোনালী ব্যাংক দরিদ্র ও স্বল্প শিক্ষিতদের আনুষ্ঠানিক ব্যাংকিং সেবার আওতায় আনতে কার্যক্রম অব্যাহত রেখেছে। এর জন্য প্রধান কার্যালয়ে পৃথক একটি সেল গঠন করা হয়। গত বছর আর্থিক অন্তর্ভুক্তি কর্মসূচির আওতায় সোনালী ব্যাংকে ৬০ লাখ মানুষ অ্যাকাউন্ট খোলেন।’