সরকারে যারাই আসুক ১ জানুয়ারি বই বিতরণ: শিক্ষামন্ত্রী

0
52

অনলাইন ডেস্ক: আগামী বছর ১ জানুয়ারিতেই পাঠ্যপুস্তক বিতরণ করা হবে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। তিনি বলেন, ‘যাতে ঠিকমত বই বিতরণ করা হয়, সেজন্য এখন থেকেই ডিসিদের উদ্যোগ নেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। আগামী যে সরকারই আসুক না কেন, বই বিতরণে যেন কোনো সমস্যার সৃষ্টি না হয়— সেজন্য আমরা ডিসিদের ব্যবস্থা নিতে বলেছি। এবারের বইয়ের পাঠ্যসূচিতে কোনো পরিবর্তন আনা হয়নি।’

মঙ্গলবার সচিবালয়ে মন্ত্রিপরিষদ সভাকক্ষে জেলা প্রশাসক সম্মেলনে সাংবাদিকদের তিনি এসব কথা বলেন। এতে সভাপতিত্ব করেন মন্ত্রিপিরষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘ইতোমধ্যে বই পাঠানো শুরু হয়েছে। ছাপার কাজ অব্যাহত আছে। ডিসিরা শিক্ষক স্বল্পতার কথা বলেছেন।’

পরীক্ষায় প্রশ্নফাঁসসহ কোনো অনিয়মের কথা ডিসিরা বলেছেন কি না জানতে চাইলে তিনি সাংবাদিকদের বলেন, ‘পরীক্ষা সুষ্ঠুভাবে নেওয়া হয়েছে, আগামীতেও সুষ্ঠুভাবে নেওয়া হবে। ডিসিরা এই বিষয়ে কোনো অভিযোগ করেননি। তবে, নদী ভাঙন এলাকা ও পাহাড়ি দুর্গম জনপথে যাতায়াতে অসুবিধার কথা বলেছেন ডিসিরা। তারা জানিয়েছেন— ওইসব এলাকায় বিদ্যালয় পরিদর্শন ও বই পৌঁছে দিতে সমস্যায় পড়তে হয়।’

এসময় প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী মোস্তাফিজার রহমান, মাদ্রাসা ও কারিগরি বিভাগের প্রতিমন্ত্রী কাজী কেরামত আলী ও শিক্ষাসচিব সোহরাব হোসাইন উপস্থিত ছিলেন।

মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিবিজড়িত স্থাপনা সংস্কারের নির্দেশ

মুক্তিযুদ্ধ বিষয়কমন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক বলেছেন, বধ্যভূমি ও মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিবিজড়িত স্থাপনার তালিকা প্রণয়ন ও সংস্কারের উদ্যোগ নিতে জেলা প্রশাসকদের (ডিসি) নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার  বিকালে সচিবালয়ে অনুষ্ঠিত জেলা প্রশাসক (ডিসি) সম্মেলনে এ নির্দেশনা দেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী। সচিবালয়ে জেলা প্রশাসক (ডিসি) সম্মেলনে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত কার্য-অধিবেশন শেষে তিনি এ কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, বধ্যভূমি ও মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিবিজড়িত স্থাপনা সংরক্ষণে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে দাবি জানিয়েছে ডিসিরা। এর পরিপ্রেক্ষিতে মন্ত্রী ডিসিদের উদ্দেশ্যে বলেন, বধ্যভূমি ও মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিবিজড়িত স্থাপনার তালিকা প্রণয়ন ও সংস্কারের উদ্যোগ নেন। এরপর পর্যায়ক্রমে সেগুলো সংরক্ষণের ব্যবস্থা নেয়া হবে।

মঙ্গলবার সকাল ১০টায় প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের শাপলা মিলনায়তনে তিন দিনব্যাপী জেলা প্রশাসক সম্মেলন ২০১৮ উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।