ট্রেনের টিকিট কাটতে চতুর্থ দিনেও কমলাপুরে ভিড়

0
67

অনলাইন ডেস্ক: ঈদের অগ্রিম টিকিট বিক্রির চতুর্থ দিনেও কমলাপুর রেলস্টেশনে হাজার হাজার মানুষ ভিড় জমিয়েছেন। অন্যান্য দিনের মতো সোমবার সকাল ৮টায় টিকেট বিক্রি শুরু হয়েছে। আজ বিক্রি করা হচ্ছে ১৩ জুনের জন্য টিকিট।

এদিকে, টিকিট পেতে মধ্যরাত থেকে রেলস্টেশনের কাউন্টারগুলোতে জড়ো হয়েছেন মানুষ। ভিড় এতটাই বেশি যে, অনেকটা হিমশিম খেতে হচ্ছে নিরাপত্তারক্ষায় নিয়োজিত আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে।

কথা বলে জানা গেছে, কাঙ্ক্ষিত টিকেট পেতে রবিবার মধ্যরাত থেকেই লাইনে দাঁড়িয়েছেন অনেকে। ভোর হতে না হতেই লাইন দীর্ঘ হতে থাকে। সকাল ৬টার দিকে লাইনে মানুষের সংখ্যা হয়ে যায় প্রায় টিকিটের তুলনায় দ্বিগুণ। লাইন কমলাপুর স্টেশনের বাইরে চলে যায়।

এদিকে টিকিট কালোবাজারে যাতে বিক্রি না হয় এজন্য সতর্ক অবস্থায় আছে আইন-শৃংখলা বাহিনী। র‌্যাব-পুলিশের পাশাপাশি রয়েছে পর্যাপ্ত সংখ্যক আনসার সদস্যরা।

কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন থেকে বিশেষ ব্যবস্থায় ৬ জুন পর্যন্ত অগ্রিম টিকিট বিক্রি করা হবে। স্টেশনের ২৬টি কাউন্টারে প্রতিদিন সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত টিকিট দেওয়া হবে। আর ফিরতি টিকিট বিক্রি হবে ১০ জুন থেকে ১৫ জুন পর্যন্ত।

ঈদে বাড়ি গমনেচ্ছু যাত্রীদের শুক্রবার দেওয়া হয় ১০ জুনের টিকিট। শনিবার দেওয়া হয় ১১ জুনের টিকিট। এরপর ৩ জুন দেওয়া হয় ১২ জুনের, আজ ৪ জুন দেওয়া হচ্ছে ১৩ জুনের, ৫ জুন দেওয়া হবে ১৪ জুনের এবং ৬ জুন দেওয়া হবে ১৫ জুনের অগ্রিম ট্রেনের টিকিট।

অপরদিকে ঈদ উদযাপন শেষে কর্মস্থলে গমনেচ্ছু যাত্রীদের ১০ জুন দেওয়া হবে ১৯ জুনের টিকিচ, ১১ জুন দেওয়া হবে ২০ জুনের, ১২ জুন দেওয়া হবে ২১ জুনের, ১৩ জুন দেওয়া হবে ২২ জুনের, ১৪ জুন দেওয়া হবে ২৩ জুনের এবং ১৫ জুন দেওয়া হবে ২৪ জুনের অগ্রিম ফিরতি ট্রেনার টিকিট।